www.tarunyo.com

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ

ভালবাসার গল্প উবার ২২৬১

দ্বিতীয় পর্ব

দুই.

অফিসে বসে আভার সেইদিনের উবার জার্নিটার কথা মনে পড়ছে | কোনোভাবেই মন থেকে যাচ্ছে না ইভানের দাঁড়িয়ে থাকার স্টাইল ! আভা যখন নিচে নেমে গাড়ির দিকে আসছিলো, গাড়িতে হেলান দিয়ে ইভানের ই-সিগারেট টানার ধোঁয়া, চোখে দামি ব্র্যান্ডের সানগ্লাস, হালকা ফ্যাট জিনসের সাথে হোয়াইট শার্ট , ফুল হাতার অর্ধেকটা ভাঁজ করা ! ব্ল্যাক কালারের ঘড়ি ! আভাকে দেখামাত্রই ই-সিগারেট স্টপ করে দরজা খুলে " গুড আফটারনুন ম্যাডাম " বলার স্টাইল যে কোনো মেয়েকে মুগ্ধ করবেই | এর আগেও আভা অনেক উবার কলে গাড়িতে উঠেছে | উৎকট গন্ধ গাড়ির ভিতরে | ড্রাইভারের চেহারা থাকে বিধ্বস্ত , ব্যবহার জানা নেই অনেক উবার চালকের কিভাবে প্যাসেঞ্জারকে সন্মান করে কথা বলতে হবে | দায়সারা স্লামালাইকুম বলেই গাড়ি চালানো শুরু করে | অথচ আভা ভাবছে , যতবারই সে বিদেশে কোনো বিজনেস ট্রিপে গেছে -- ড্রাইভারদের কি চমৎকার ব্যবহার ; কথোপকথন , কুশলাদি বিনিময়, বাংলাদেশ সম্মন্ধে জানার আগ্রহ | পোশাক-আশাকের বাহার, চুলের স্টাইল, ফ্রেশ এন্ড ক্লিন সেভ ফেইস, ওয়েস্টার্ন মিউজিক চালানো গাড়ির ভিতরের পরিবেশ যেন অনেকদিন পর অনুভব করলো আভা | হঠাৎ কোনো ভাললাগা কিছুদিন মনে গেঁথে থাকে , যা সহজে যায় না | ইমেইল খুঁজে সেদিনের উবার এক্সপেরিয়েন্সের রিভিউ রিপোর্টে নাম্বারটা দেখে নিলো সে | তারপর মোবাইলে সেভ করে নিলো | ইভানের কথা বলার ধরণ, গাড়ির ভিতরে পারফিউমের গন্ধ মনে হচ্ছে এখনো আভার গায়ে লেগে আছে | কম্পিউটারে কিছু লিখতে লিখতে সেকান্দার সাব " মে আই কামিং ম্যাডাম " বলে ঢুকে পড়লেন | মাথা নেড়ে বসতে বললেন আভা |
- কি ব্যাপার সেকান্দার সাব ? কি জন্য ?
- ম্যাডাম, নেক্সট মাসে অফিস থেকে তিন সদস্যের একটা টিম ইতালি যাবার কথা রয়েছে | জিএম সাব বলছিলেন, আপনি যেন যান সেই বিজনেস ইনভেষ্টর প্রোগ্রামে |
- সেকান্দার সাব, আমি যেতে পারবো না ! অন্য কাউকে সিলেক্ট করুন | জিএম স্যারের সাথে আমি কথা বলে নেবো |
- ম্যাডাম, আমাদের কিছু অর্ডার এন্ড শিপমেন্ট পোর্টে আটকে আছে ; যদি সি এন্ড এফ এজেন্টের সাথে নেগোসিয়েশন করে একটু কুইক রিলিজ করে দিতেন |
- আমার কাজ এখনো শেষ হয়নি | আমি জানাবো |
- ঠিক আছে ম্যাডাম, আমি তাহলে এখন যাচ্ছি |
- সেকান্দার সাব, আপনাকে বহুবার আকার -ইঙ্গিতে বলার চেষ্টা করেছি ; ইউ গো টু ডেন্টাল স্পেশালিস্ট এন্ড টেক কেয়ার ইওর মাউথ ব্যাড স্মেল হুইচ আই ক্যান'ট টলারেট | ইফ ইউ ক্যান'ট সল্ভ দিস প্রব্লেম, ডোন্ট কাম মাই রুম | আপনি এখন আসতে পারেন |

বলা যায় একরকম কঠিন একটা লজ্জার ঝুলি নিয়েই সেকান্দার সাব রুম থেকে বেরিয়ে গেলেন | আভা পুরো রুমে এয়ারফ্রেশনার স্প্রে করে আবার কম্পিউটারে মনোযোগ রাখলো | স্পষ্ট কথা বলায় কোনোরকম রাখঢাক করেনা বলেই কোম্পানির চেয়ারম্যান জামালউদ্দিন সাহেব পর্যন্ত্য অফিসের যে কোনো ব্যাপারে ফাইনাল ডিসিশন নেবার আগে আভার সাথে একবার শলাপরামর্শ করে নিবেনই | কর্পোরেট লেভেলে কাজ করতে হলে সব বিষয়ে ক্লিয়ারকাট না হলে পজিশন টিকিয়ে রাখা অনেক কম্পেটিটিভ | আভা এক্ষেত্রে কোনো ছাড় দিতে নারাজ | কিন্তু সেইদিন গাড়িতে উঠে ইভানকে একচোট ঝাড়ি দেবার আগেই নিজেই কুপোকাত | ইভানের স্মার্টনেস , ওর সাবলীল সহজসরল ক্যারিয়ার রিলেটেড কথা আভাকে এতটাই মুগ্ধ করেছে যে, সেদিনের গুলশানে মিটিংয়ে পর্যন্ত্য এমডি সাব বলেই বসলেন, আর ইউ আপসেট মিস আভা ? অর এনিথিং রং ?

" নো নো স্যার , আই এম ওকে " বলে অন্যমনস্কতা থেকে নিজেকে বের করে আনে আভা |
হঠাৎ কি মনে করে ইভানকে একটা কল দিয়ে বসলো আভা | ও'পাশ থেকে হ্যালো শুনেই আভা বলে উঠলো-
:- কেমন আছেন ?
- ইয়েস, আই এম ফাইন ! ইউ ?
- আই এম ফাইন অলসো | সেদিন আপনার গাড়িতে আমার কোনোকিছু কি ফেলে এসেছি ? আমার একটা চাবি খুঁজে পাচ্ছি না !
- প্রবাবলী নট ! লেট্ মি চেক এগেইন ম্যাডাম | ইফ আই ফাইন্ড এনি কী, আই উইল কল ইউ রাইট ওয়ে | টেক কেয়ার , বাই |

এই প্রথম কোনো ছেলে অল্প কথা বলে মুখের উপর ফোন রেখে দিলো আভার | ব্যাপারটা মেনে নিতে পারছে না সে | সে যাকগে, কন্ঠটা তো শোনা হলো ! হোয়াট এ ভয়েস ! লেডি কিলার টোন | কলিংবেল চেপে সেলিমকে কফি দিতে বললো আভা | একদিনের ধানমন্ডি টু গুলশান উবার ড্রাইভিং হৃদয়ে যেন লং জার্নি ফিল হচ্ছে ওর | একটু সমস্যাই মনে হচ্ছে আভার | আটাশ বছরে এসে ভাললাগার একটা মৃদু ধাক্কা লাগলো শরীরে মনে হচ্ছে | --- চলবে
বিষয়শ্রেণী: গল্প
ব্লগটি ২৯ বার পঠিত হয়েছে।
প্রকাশের তারিখ: ১২/০৯/২০১৯

মন্তব্য যোগ করুন

এই লেখার উপর আপনার মন্তব্য জানাতে নিচের ফরমটি ব্যবহার করুন।

Use the following form to leave your comment on this post.

মন্তব্যসমূহ

 
Quantcast