www.tarunyo.com

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ

সুধা ত্যাগী প্রাসাদী

সুধা ত্যাগী প্রাসাদী
আব্দুল কাদির মিয়া
============
ঘুম ঘুম নিঝুমে
মধু মধু তন্দ্রা।
পুষ্প কাননে প্রাসাদ-
গুন গুনে পাপিয়ার।
ওসনে ভোরের বায়ু-
মৃদু মৃদু শীতলে।
তীর্থ কোকিল ডাকে-
ফুটন্ত বকুলে।
শয়ন ত্যাগেনি তবু,
পিয়ানোতে নিশি সুর।
নূপুরের ঝংকারে-
কাটেনি রজনী ঘোর।
জাগিলো তেজিয়া কিরন-
প্রভাতি নেই সমূলে।
তবে শয্যা ছাড়িল স্নানে,
স্বর্নঘাট কমলে।
সোনালী সুখের তরী-
বয়ে আরো সজোরে,
তবু উঠিল ভরাটে গোলায়-
বরেন্দ্র ভাদরে।
দিবসের শুরু কভু-
দেখেনি জীবনে যার।
ছোবহের আরাধনার-
স্বাদ কি বুঝিবে তাঁর?
যশে ভাটা পরে তাপে-
হৃদে চির নাহি ধরে যার।
বুঝিবে কি সুধা জ্বালা,
ইলাহি-
আরাধনার পিপাসার?
=============

বাণীঃ- সতীত্বে ঢাল মৃদু,
রুক্ষ আচরন-
সুমতি নারীর সেতো,
অমূল্য ধন।

বাণীর সংক্ষিপ্ত ব্যাখাঃ-
=============
লেখক এখানে নারীর মহা মূল্যবান সম্পদ,
সেই সতীত্ব কে রক্ষা করিতে যদিও সে সরল মনা সাদা-সিধে শান্ত
ভদ্র প্রকৃতির হয়ে থাকে তবুও যুগ তাল ও পরিবেশের অবক্ষয়ে এখন
সেই ধারাকে ধরে রাখার মান যেন বাঘের শিকার হতে ছাগল রক্ষা করিতে,সেই মহিষ মানত করার কল্পকাহিনীতে সত্য রুপ ধারন করেছে বলে বলেছেন। তাই লেখক মনে করেন সেই ছাগল বাঁচাতে
আর সরল হাসি ও মন খোলা অবাধ চলনে মূল্যবান সাধের মহিষ খানা
আর হারাবার দরকার নেই। স্বর্ন যাচাইয়ের জন্য কষ্টিপাথরই যথেষ্ট।
সেই পোড়া ইটার যাচাইয়ে তাঁর মান নির্নয় না হলেও বিশ্ব বাজারে তাঁর
দাম মোটেই বিন্দু কমতি নেই।
বিষয়শ্রেণী: কবিতা
ব্লগটি ৭১ বার পঠিত হয়েছে।
প্রকাশের তারিখ: ১৩/০৮/২০২০

মন্তব্য যোগ করুন

এই লেখার উপর আপনার মন্তব্য জানাতে নিচের ফরমটি ব্যবহার করুন।

Use the following form to leave your comment on this post.

মন্তব্যসমূহ

 
Quantcast