www.tarunyo.com

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ

জাপানী আদলে বাংলা হাইকু-৩ (বিশ প্রেম-৭)

মিলন ব্যথা
পদ্মার সাথে মেঘনা
সাগরে লোনা।


অন্তরে আছ-
বেঁধেছি ফুল রাখী
খুলে ফেল না।


ডানার শব্দ
পান্থ পাখির ফেরা
নন্দন ছন্দ।


আশায় থাকি
তৃষ্ণ আকুল মন
দিগন্তে চোখ।


প্রেমিক নও
যদি হেলায় থাকো
জায়গা না দাও।


বুঝেছি মাত্র
যন্ত্রনা কত মূল্য
তোমাকে খুঁজে।

দরদী ধন
শিরে দাও না স্পর্শ
ফুলে মুকুল।


যারে যা পাখি
ছিন্ন প্রেমে একাকী
নিঃশেষে খাঁচা।


প্রেম রসালো-
ছিঁড়ে মিথ্যার জাল
ঘুচবে জঞ্জাল।


যে প্রেম জ্বলে
সুধায় দীপ্ত হয়
গৌরব স্থায়ী।


তুমি জানো না-
সাধনে মিলছে ছন্দ
বেঁধেছি প্রাণ।


সার্থক স্বপ্ন
তৃষ্ণায় ক্ষুদ্ধ আশা
আঁধারে ভাষা।

প্রেম উদ্দেশ্য
অতীতে বহে স্বপ্ন
নব্য কালের।


হৃদয় কাঁপে-
স্মৃতির দীপ জ্বেলে
শান্তির দান।


পরান কান্দে
পিড়ীতি মজে ক্ষীর
কার বচনে?


নয়নে জল
কুঞ্জ দুয়ারে আশ
প্রাণে বসন্ত।


আঁখিতে আঁখি
হৃদয়ে হৃদি স্পর্শ
ভূবন জয়।


দু’জনে মিল
দু’ধারে বসবাস
মন উদাস।

মিশেছো বক্ষে
প্রেম হারালে রুক্ষ্ম
হারাবো দিশে।


ছায়ার নৃত্য
পাগল করে মন
অধরা প্রেম।


সুদিন আশে
ভালবাসা বেদনা
সাধনে মেলে।


বিশ্ব কাঙাল
প্রেমের দানে মজনু
সেরা ইনাম।


পাচ্ছি তোমায়
আকাশ মাটি লীন
সঙ্কেত তারা।


আঁখির তৃষ্ণা
হৃদয়ের ভরসা
এটাই প্রেম।

আকুল তৃষ্ণা
নতুন অনুরাগ
দহনে মধু।


প্রেমের মন্ত্র
চির সুন্দরাবদ্ধ
অভিনন্দন।


প্রেমের ঋণ
শোধ হয় ক্ষমায়
থাকলে কালিমা।


আশায় মত্ত-
প্রেমের ফাঁদে বিশ্ব
পরলে ভয় কী?


চাঁদের প্রেম
ছুঁয়ে যায় এ গ্রহ
দু’ শ পেরুলে।


জোনাক প্রেম
ভূবনে দীপ জ্বেলো
শান্তি পরশ।

তুমি সুন্দর
রংধনু সুধা ঝরে
প্রাণ ভেতর।


প্রেম পিপাসা
কন্ঠ শুস্ক কঠিন
দৃষ্টি কুয়াশা।


পীড়িতি চাষে
ভরে যাক পৃথিবী
শুভ মিলনে।


রূপের মোহ
উদাস প্রেম দাহ
ভাবের রসে।


সবুজ প্রেম
আলোর স্বপ্নে খুশি
ভূমিতে মিলে।


কত যুগের
কত গোপন কথা
গম্ভীরে জাগে।

প্রিয় পরবাসী
যাও মেঘের গতি
নীরবে বলে।


মন ছুটেছে-
প্রেমে মত্ত প্রবাহ
দূর ভূবনে।


সিক্ত সমীর
রৌদ্রছায়া পেছনে
চলেছো ধীরে।


জীবন বাঁধা
দুঃখ-সুখে দু’তারে
নিবিড় বীণ।


কান্ডারী তুমি-
হাসি কান্নার প্রেম
অমৃত সুধা।


হিয়া বন্ধন
প্রতিক্ষণ বিরহ
সুখ স্পন্দন।

অনন্ত বাণী
মধুপাত্র কোরআন
পূর্ণ বিধান।


কিছু দাও না
প্রাণ মুখর প্রেম
লও নীরবে।


কার সন্ধানে
খুঁজি অন্তরে বাইরে
নন্দন সুখে।


পথ চিনেছি
খুঁজবো তোমায় দিলে
মহান আশা।


প্রেমের চিহ্ন
চেনা দিনের গন্ধ
কষ্টে চমক।


সুখ সন্ধানে
পীড়িতি জপিমালা
হৃদয় জ্বলে।

ফুলের প্রাণে
মধু লুকিয়ে
মৌমাছি ঘর ছাড়া।


বসন্ত ফুল
সবার সাথে বাঁধা
নতুন ধ্যানে।


প্রেমের শিখা
ললাটে আঁকো বিশ্বে
বিজয় টিকা।


কুসুম বাগে-
ভ্রমর সুরে ম’জে
হাওয়ায় দুলে।


প্রাণে মানুষ
একা আরেক খোঁজে
দরদ বুঝে।


রাঙিয়ে দাও
অরুণ রাগে মর্মে
আমার কর্মে।

মন মানে না
সারা বেলা আনমনা
দৃষ্টি হানে না।


তিলক আঁকা-
প্রেম রেনুর সুধা
করাও পান।


সকালে কুঁড়ি
বিকালে ঝরা পাঁপড়ি
মাঝখানে ফাঁকি।


যাবার বেলা
কঁচি পাতার স্বর
ডাকছে আমায়।


কালের স্রোত
দোলে যে ঢেউ খেলে
সচল ছবি।


তোমার শুরু
দু’য়ে বন্ধন ধারা
আমার সারা।
বিষয়শ্রেণী: কবিতা
ব্লগটি ২৯৭ বার পঠিত হয়েছে।
প্রকাশের তারিখ: ২১/১২/২০১৬

মন্তব্য যোগ করুন

এই লেখার উপর আপনার মন্তব্য জানাতে নিচের ফরমটি ব্যবহার করুন।

Use the following form to leave your comment on this post.

মন্তব্যসমূহ

  • শমসের শেখ ২২/১২/২০১৬
    এ যেন অবিশ্বাস এক লেখনি ।
  • সোলাইমান ২১/১২/২০১৬
    অনেক সুন্দর প্রিয় কবি।
    • অনেক ধন্যবাদ সোলাইমান ভাই। লেখা কী রকম লিখেছি জানিনা তবে একটা বই প্রকাশের বড় প্রয়োজন ছিল তাই লেখা। ভাল থাকুন।
  • মোনালিসা ২১/১২/২০১৬
    উফ ক্লান্ত.........
    • আপনি ক্লান্ত হয়েছেন জেনে খুশী হলাম। কেননা বিরক্তি আনতে পেরেছি। তরেছেন জেনে খুশী হলাম অনেক অনেক। ভাল থাকুন।
  • শুভেচ্ছা।
 
Quantcast